Image default
বাংলাদেশবিশেষ সংবাদসিলেট

কমলগঞ্জে মাদারিস-মোক্তাদির ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প

পারিবারিক উদ্যোগে এলাকার হতদরিদ্র মানুষদের জন্য ফ্রি চিকিৎসাসেবার আয়োজন করে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার মুন্সীবাজার ইউনিয়নের মাদারিস-মোক্তাদির তরফদার ফাউন্ডেশন। এটি ছিল ওই এলাকায় ২য় বারের মতো বড় পরিসরে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প। আগে থেকেই ছিল প্রচার-প্রচারণা। হয়েছে রেজিস্ট্রেশন। গতকাল সকাল থেকেই চিকিৎসাসেবা বঞ্চিত স্থানীয় হতদরিদ্র অসহায় লোকের ভিড় ছিল লক্ষণীয়। প্রচণ্ড রোদ ও খরার মধ্যেও আয়োজকদের সুশৃঙ্খলিত আয়োজনে মুগ্ধ ছিলেন চিকিৎসাসেবা গ্রহীতারা। মেডিকেল ক্যাম্পে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্র ও ওষুধ পেয়ে আনন্দিত উপকারভোগীরা। জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার মুন্সীবাজার ইউনিয়নের পরানধরপুর গ্রামে বিশিষ্ট সমাজসেবক ও বিদ্যুৎ শ্রমিকলীগ সিলেট সুনামগঞ্জ জেলা শাখার সাবেক সভাপতি মরহুম মাদারিস আহমেদ তরফদার এর ১১তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে পরিবারের সদস্যদের উদ্যোগে দিনব্যাপী এই ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্পের আয়োজন করা হয়।

মেডিকেল ক্যাম্পে সার্বিক সহযোগিতা করেন আক্কু ফাউন্ডেশন, বিএনএসবি চক্ষু হাসপাতাল, রাইট টার্গেট গ্রুপ অব বাংলাদেশ, তাকরীম ফাউন্ডেশনসহ স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, ডা. আদেলী আদিব খান ও তার সহযোগীরা। গতকাল সকালে মরহুমের বাড়িতে আয়োজিত এই ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প উদ্বোধন করেন মৌলভীবাজার-৪ (কমলগঞ্জ ও শ্রীমঙ্গল) আসনের একাধিকবারের নির্বাচিত জাতীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা উপাধ্যক্ষ ড. আব্দুস শহীদ। সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান, বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ মিছবাহুর রহমান। মরহুমের বড় ভাই অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আব্দুল মোক্তাদির তরফদারের সভাপতিত্বে ও রুহুল কুদ্দুছ বাবুলের পরিচালনায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশেকুল হক, কমলগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মোছাদ্দেক আহমদ মানিক প্রমুখ। উপস্থিত ছিলেন মরহুমের একমাত্র পুত্র ও পররাষ্ট্রবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব তানভীর আহমদ তরফদার (জুম্মন), মরহুমের মেয়ে নাজমুন নাহার নিপা, ভাইয়ের ছেলে বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজ সেবক ইমন আহমেদ তরফদার ও মেহেদী হাসান মুরাদ প্রমুখ। চিকিৎসাসেবায় ছিল দন্ত, মেডিসিন, শিশুরোগ, চক্ষু, সুন্নাতে খৎনা ও রক্তের গ্রুপ নির্ণয়। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ২০ জন বিশেষজ্ঞ ডাক্তার ও তাদের সহকারীরা এই চিকিৎসাসেবা প্রদান করেন। উল্লেখ্য, করোনাকালীন তাদের পরিবার ও ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে বিনামূল্যে অক্সিজেন সিলিন্ডার, দাফন-কাফনে নিয়োজিত স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনগুলোকে নানা প্রয়োজনীয় উপকরণ সহায়তা ও মাস্ক বিতরণ করেন।

Related posts

শমশেরনগর হাসপাতাল প্রতিষ্ঠার সাথে যুক্ত হলেন লণ্ডনের সেলিব্রিটি শেফ আতিকুর রহমান।

admin@goldensylhet24.com

সুর চৌধুরী ও শাহ আলমকে কেন গ্রেপ্তার করা হচ্ছে না: হাইকোর্ট

admin@goldensylhet24.com

গোয়াইনঘাটে ব্যবসায়ীর ১০ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগ

admin@goldensylhet24.com

Leave a Comment